কুমিল্লার পাসপোর্ট অফিস এলাকায় র‌্যাবের অভিযান; ৫ দালাল আটক

জহিরুল হক বাবু ।।
প্রকাশ: ৩ সপ্তাহ আগে

কুমিল্লা আঞ্চলিক পাসপোর্ট অফিস এলাকায় অভিযান চালিয়ে বিপুল পরিমাণ পাসপোর্ট এর স্লিপ সহ ৫ দালালকে আটক করেছে র‌্যাব।
র‌্যাব- ১১ সিপিসি ২ কুমিল্লার একটি দল রবিবার দুপুরে পাসপোর্ট অফিসে অভিযান পরিচালনা করেন।
বিকেলে এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন র‌্যাব ১১ সিপিসি ২ কুমিল্লার কোম্পানি অধিনায়ক মাহমুদুল হাসান।
সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে র‌্যাব জানায়, ভুক্তভোগী দালাল চক্রের সদস্যকে পাসপোর্ট করতে দিয়ে অতিরিক্ত টাকা নেওয়ার পরেও যথাসময়ে পাসপোর্ট পায়নি মর্মে র‌্যাবের নিকট লিখিত ও মৌখিক অভিযোগ করেন।
এসকল অভিযোগের সত্যতা যাচাই পূর্বক র্যাব-১১, সিপিসি-২, কুমিল্লার একটি টিম ছায়াতদন্ত শুরু করে এবং দালাল চক্রকে হাতেনাতে গ্রেফতারের লক্ষ্যে গোয়েন্দা তৎপরতা বৃদ্ধি করে।
গোয়েন্দা সূত্রে প্রাপ্ত তথ্যের ভিত্তিতে র্যাব-১১, সিপিসি-২ এর একটি দল অদ্য রবিবার (২৩ জুন) কুমিল্লা জেলার কোতয়ালী মডেল থানাধীন নোয়াপাড়া এলাকায় বিশেষ অভিযান পরিচালনা করে।
অভিযানে পাসপোর্ট দালাল চক্রের মূলহোতা সহ ৫ জন সক্রিয় সদস্যকে গ্রেফতার করা হয়। এসময় পাসপোর্ট দালাল চক্রের হেফাজত থেকে ৯৭ টি ডেলিভারি স্লীপ, ১০ টি পাসপোর্ট চালানসহ পাসপোর্ট সংক্রান্ত বিভিন্ন নথিপত্র উদ্ধার করা হয়।
গ্রেফতারকৃত হলো দেবিদ্ধার উপজেলার জাফরাবাদ এলাকার মোঃ ফজল (৪৩) ও মোঃ ওমর ফারুক (৩৫), আদর্শ সদর উপজেলার আড়াইওরা এলাকার মোঃ আলমগীর হোসেন (৬০), রাজাপুর এলাকার ফয়সাল আহমেদ (২১), কুমিল্লা নগরীর ছোটরা এলাকার মোঃ জনি (২২),
র‌্যাবার জানায় প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদ ও অনুসন্ধানে গ্রেফতারকৃত আসামীরা সকলেই পাসপোর্ট দালাল চক্রের সক্রিয় সদস্য এবং তারা দীর্ঘদিন যাবৎ পাসপোর্ট তৈরী করে দেওয়ার নাম করে ভুক্তভোগী লোকজনের নিকট থেকে সরকার নির্ধারিত রেট এর অধিক বিপুল পরিমাণ টাকা হাতিয়ে নিয়ে আসছিল বলে স্বীকার করে।
মূলতঃ তারা সাধারণ মানুষকে সহজভাবে পাসপোর্ট তৈরী করার নাম করে বিভিন্ন এজেন্টের নিকট নিয়ে আসে। এই এজেন্ট গ্রুপ ভুক্তভোগীদের অনলাইন আবেদন ও ব্যাংক ড্রাফট করে দেওয়ার পাশাপাশি দ্রুতসময়ে পাসপোর্ট দিবে বলে ডেলিভারী স্লীপ নিজেদের নিকট রেখে দেয় এবং বিভিন্ন কৌশল অবলম্বন করে পাসপোর্ট ডেলিভারী করার নির্দিষ্ট তারিখ নিধারণ করে।
এভাবেই তাদের কাছে টাকা জমা দিলে তারা বিভিন্নভাবে প্রয়োজনীয় কাগজপত্র জালিয়াতি মাধ্যমে প্রস্তুত করে সকল কার্যক্রম সম্পন্ন করে পাসপোর্ট অফিস থেকে পাসপোর্ট সংগ্রহ করার ব্যবস্থা করে আসছিল বলে মর্মে জানায়।
গ্রেফতারকৃত আসামীদের বিরুদ্ধে কুমিল্লা জেলার কোতয়ালী মডেল থানায় আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে।