কুমিল্লায় মাদক সেবনে নিষেধ করায় কিশোরকে হত্যা

স্টাফ রিপোর্টার
প্রকাশ: ২ মাস আগে

কুমিল্লার দেবিদ্বারে মাদক সেবনে নিষেধ করায় এক কিশোরকে মারধর করে হত্যার অভিযোগ উঠেছে। নিহত আজিজুল হক হৃদয় (১৪) উপজেলার মুগসাইর গ্রামের অটো চালক রিপন মিয়ার ছেলে। শুক্রবার নিহতের মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে।
নিহতের পরিবার ও স্থানীয় সুত্র জানায়, ২২ জুন দুপুওে তার পাশের গ্রাম উপজেলার পশ্চিম পোমকাড়া গ্রামে হৃদয় হাঁটতে যায়। এসময় ঐ গ্রামের ইদ্রিস আলীকে মাদক সেবন করতে দেখে নিষেধ করায় সে রেগে যায়। এক পর্যায়ে ইদ্রিস ও তার সাথে থাকা বন্ধুরা হৃদয়কে মাটিতে ফেলে এলোপাতাড়ি মারধর করে। এতে হৃদয়ের বুকে ও শরীরে আঘাত প্রাপ্ত হয়। আহত অবস্থায় হৃদয়কে স্থানীয়রা বাড়ি পৌছে দেয়। মারধরের শিকার আজিজুল হক হৃদয় বৃহস্পতিবার বিকেলে মারা যায়। অভিযুক্ত ইদ্রিস মাদকসেবন ও মাদক কারবারের সাথে জড়িত।
হৃদয়ের মা রিনা বেগম জানান, ভালো পথে ফিরে আসতে বলায় ওরা আমার ছেলেকে মেরে ফেলেছে। তারা গতকাল এসে আবার আমাকে সাবধান করে দিয়ে বলেছে, আমি যেন ছেলেকে শাসন করি। আমি ছেলে হত্যার বিচার চাই।
দেবিদ্বার থানা ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা কমল কৃষ্ণ ধর জানান, লাশ ময়নাতদন্তের জন্য কুমিল্লা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হয়েছে। রিপোর্ট পেলে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।