ছয় মাসের সাজা থেকে বাঁচতে ৮ বছর আত্মগোপনে

স্টাফ রিপোর্টার
প্রকাশ: ৩ মাস আগে

ফেনী প্রতিনিধি : ফেনীর সোনাগাজীতে ৬ মাসের সাজা থেকে বাঁচতে ৮ বছর ধরে আত্মগোপনে থাকা ছেরাজুল হককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। উপজেলার ছাড়াইতকান্দি এলাকা থেকে ছেরাজুল হককে গ্রেফতার করা হয়।

শনিবার বিকেলে তাকে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে। ছেরাজুল হক উপজেলার সদর ইউপির ছাড়াইতকান্দি এলাকার বাসিন্দা ও আবদুল মালেকের ছেলে।

পুলিশ জানায়, ২০০৮ সালে মারামারির একটি মামলায় পুলিশ ছেরাজুল হককে গ্রেফতার করে কারাগারে পাঠায়। কিছুদিন কারাভোগের পর জামিনে বের হয়ে ছেরাজুল হক গা ঢাকা দেন। পরে আর তিনি আদালতে হাজির হননি। দীর্ঘ শুনানি শেষে ২০১৪ সালের মার্চে আদালত ছেরাজুল হককে ছয় মাসের কারাদণ্ড দেন।

পুলিশ আরো জানায়, ছেরাজুল হক প্রায়ই স্থান পরিবর্তন করতেন। একটি মোবাইল নম্বর বেশি দিন ব্যবহার করতেন না। মাঝেমধ্যে গোপনে রাতে বাড়ি আসতেন। আবার ভোর হওয়ার আগে চলে যেতেন। পরে পুলিশ গোপন সূত্রে বিষয়টি জানাতে পারে। কয়েক দিন ধরে ছেরাজুলকে ধরতে পুলিশ গভীর রাতে তার গ্রামের বাড়িতে এবং সম্ভাব্য কয়েকটি স্থানে গিয়ে খোঁজখবর নেয়। পরে এক ব্যক্তির মাধ্যমে পুলিশ ছেরাজুলের মোবাইল নম্বর ও ছবি সংগ্রহ করে।

সোনাগাজী থানার এএসআই আবদুল মতিন বলেন, ছেরাজুল হক বৃহস্পতিবার রাতে গোপনে বাড়িতে আসেন। তথ্যপ্রযুক্তি ব্যবহার করে ওই মোবাইল নম্বরের সূত্র ও পুলিশের সোর্সের দেওয়া তথ্যের ভিত্তিতে শনিবার ছাড়াইতকান্দি এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাকে গ্রেফতার করা হয়।

সোনাগাজী মডেল থানার ওসি খালেদ হোসেন বলেন, ছেরাজুলকে আদালতের মাধ্যমে ফেনী কারাগারে পাঠানো হয়েছে।