নাঙ্গলকোটে মাদ্রাসা অধ্যক্ষের বিরুদ্ধে ৫ লক্ষাধিক টাকা আত্মসাতের অভিযোগ

শিক্ষার্থীদের থেকে অতিরিত অর্থ আদায়
নাঙ্গলকোট প্রতিনিধি ॥
প্রকাশ: ১০ মাস আগে

কুমিল্লার নাঙ্গলকোটের মন্তলী রহমানিয়া ফাজিল মাদ্রাসা অধ্যক্ষ মাওলানা সামছুউদ্দিনের বিরুদ্ধে প্রায় ১ হাজার শিক্ষার্থীদের থেকে অতিরিক্ত অর্থ আদায়ের মাধ্যমে প্রায় ৫ লক্ষাধিক টাকা আত্মসাতের অভিযোগ পাওয়া গেছে।

অভিযোগ সূত্রে জানা যায়, উপজেলার মন্তলী রহমানিয়া ফাজিল মাদ্রাসার দাখিল শ্রেনী পর্যন্ত প্রায় ১ হাজার শিক্ষার্থীর নিকট থেকে দ্বিতীয় সাময়িক পরীক্ষা সামনে রেখে মাসিক বেতনের বাইরে পরীক্ষা ফি ৩শত টাকা ও আদার চার্জ ৩ শত টাকা মোট ৬শত টাকা অতিরিক্ত আদায় করা হয়।
অবৈধভাবে আদায়কৃত অর্থের পরিমান প্রায় ৫ লক্ষাধিক টাকা।

অভিযোগ সূত্রে আরো জানা যায়, মাওলানা সামছুউদ্দিন মন্তলী মাদ্রাসায় অধ্যক্ষ হিসেবে যোগদানের পর থেকে বেপরোয়া ভাবে বিভিন্ন সময়ে নানাবিধ খাত তৈরি করে শিক্ষার্থীদের নিকট থেকে অতিরিক্ত অর্থ আদায় করে আসছেন।

নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক কয়েকজন অভিভাবক প্রতিবেদককে বলেন, দ্রব্যমূল্যের লাগামহীন গতি, অনেক পরিবারে রোজগারের কোন ব্যবস্থা নেই এর মধ্য সন্তানদের লেখা পড়ার খরচ চালানো দূর্সাধ্য হয়ে পড়েছে। তার উপর আবার শিক্ষা প্রতিষ্ঠান থেকে বিভিন্ন নামে অতিরিক্ত অর্থ প্রদানের চাপে আমরা দিশেহারা।

অভিযোগের বিষয়ে জানতে চাইলে মাদ্রাস অধ্যক্ষ মাওলানা সামছুউদ্দিন গর্ব করে বলেন, অন্যান্য প্রতিষ্ঠানের তুলনায় আমি শিক্ষার্থীদের নিকট থেকে কম টাকা নিয়ে থাকি। পাশ্ববর্তী প্রতিষ্ঠান গুলো আরো অনেক বেশী টাকা আদায় করে।

উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার নাছির উদ্দীন বলেন, কোন ভাবেই পরীক্ষা ফি ৩ শত টাকা নিতে পারেনা। আর বছরের মাঝামাঝি আদার চার্জ নামে কোন অর্থ আদায়ের সুযোগ নেই। খোঁজ নিয়ে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহন করা হবে।

উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা রায়হান মেহেবুব বলেন, শিক্ষার্থীদের নিকট থেকে বিভিন্ন নাম দিয়ে অতিরিক্ত অর্থ আদয়ের কোন সুযোগ নেই। মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসারের সাথে কথা বলে সংশ্লিষ্টদের বিরুদ্ধে আইন অনুযায়ী ব্যাবস্থা গ্রহন করা হবে।