বুড়িচংয়ে নিখোঁজের চার দিন পর ডোবা থেকে অটোচালকের মরদেহ উদ্ধার

বুড়িচং প্রতিনিধি।।
প্রকাশ: ৮ মাস আগে

বুড়িচংয়ে নিখোঁজের চারদিন পর সনজিত চন্দ্র দেবনাথ (৬৫) নামে এক অটোচালকের মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ।
শুক্রবার দুপুরে কুমিল্লা সিলেট আঞ্চলিক মহাসড়কের বুড়িচং উপজেলার রামপুর পোস্ট অফিস এলাকার সড়কের পাশে একটি ডোবা থেকে মরদেহটি উদ্ধার করে দেবপুর ফাঁড়ি পুলিশ।

নিহত সঞ্জীবচন্দ্র দেবনাথ বুড়িচং উপজেলার ময়নামতি ইউনিয়নের শাহদৌলতপুর গ্রামের মৃত অধর দেবনাথের ছেলে।
এর আগে ২৫ সেপ্টেম্বর সোমবার রাত ৯ টায় অটোরিকশা নিয়ে বাড়ী থেকে বের হয়ে নিখোঁজ হয় সনজিত চন্দ্র দেবনাথ।
নিহতের ছেলে অর্পণ দেবনাথ জানায়, তার বাবা ব্যটারী চালিত অটোরিকশা চালিয়ে জীবিকা নির্বাহ করত। ২৫ সেপ্টেম্বর রাতে অটোরিকশা নিয়ে বাড়ি থেকে বের হয়। ওই দিন রাতে সে আর বাড়ি ফেরেনি। রাতে বিভিন্ন স্থানে খোঁজাখুঁজি করে ২৬ সেপ্টেম্বর বুড়িচং থানায় একটি একটি নিখোঁজ ডায়েরি করে সে।

পুলিশ জানায়, শুক্রবার দুপুরে স্থানীয়রা রামপুর পোস্ট অফিস এলাকায় ইদ্রিস মিয়ার পুকুরে একটি মরদহ ভাসতে দেখে জাতীয় জরুরি সেবা ৯৯৯ নম্বরে কল দেয়। পরে দেবপুর পুলিশ ফাঁড়ির এস আই রুহুল আমিন ঘটনাস্থলে গিয়ে লাশ উদ্ধার করে।

পুলিশ কর্মকর্তা রুহুল আমিন জানান, বিকেল ৩টায় পুকুর থেকে মরদহটি উদ্ধার করা হয়। পরে পরিবারের সদস্যরা নিহতের পরিচয় নিশ্চিত করেন। প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে চার দিন আগে তার মৃত্যু হয়েছে। লাশ ময়না তদন্তের জন্য মর্গে পাঠানো হয়েছে।

বুড়িচং থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা খন্দকার আবুল হাসনাত জানান, প্রাথমিকভাবে নিহতের শরীরে কোন আঘাতের চিহ্ন পাওয়া যায়নি। এ ঘটনায় বুড়িচং থানায় একটি হত্যা মামলা দায়েররে প্রস্তুতি চলছে। ময়নাতদন্ত রিপোর্ট পেলে মৃত্যুর সঠিক কারণ নিশ্চিত হওয়া যাবে।