বোন ও ভাগ্নির এক মাস পর মৃত্যুর কাছে পরাজিত সিয়াম

চান্দিনায় সিএনজি অটোরিক্সায় বাস ও পিকআপের ধাক্কা
চান্দিনা প্রতিনিধি ।।
প্রকাশ: ২ মাস আগে

কুমিল্লার চান্দিনায় বাসের ধাক্কায় একই পরিবারের তিনজনসহ ৪জন নিহতের ঘটনার এক মাস পর মৃত্যু হয়েছে আরও একজনের। ওই দুর্ঘটনায় আহত হয়ে দীর্ঘদিন মৃত্যুর সাথে পাঞ্চা লড়ে অবশেষে বোন ও ভাগ্নির মতোই না ফেরার দেশে পাড়ি জমায় নবম শ্রেণীর স্কুল ছাত্র ইসরাফিল মঞ্জুর সিয়াম (১৪)।

দীর্ঘ এক মাস ঢাকার বিভিন্ন হাসপাতালে চিকিৎসাধীন থেকে বুধবার (২৯ নভেম্বর) দিনগত রাত ১২টায় বঙবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয় হাসপাতালের আইসিইউ’তে মৃত্যুর কাছে হার মানে সিয়াম। ওই দুর্ঘটনায় নিহত হয়েছিল তার আপন খালা রেজিয়া বেগমও (৪৫)।

নিহত ইসরাফিল মঞ্জুর সিয়াম চান্দিনা উপজেলার মাধাইয়া ইউনিয়নের নাওতলা গ্রামের মঞ্জুরুল আলম এর ছেলে। দুই ভাই এক বোনের মধ্যে সবার ছোট সিয়াম। সে মাধাইয়া বাজার ছাদিম উচ্চ বিদ্যালয়ের নবম শ্রেণীর ছাত্র।

এর আগে গত ৩১ অক্টোবর (সোমবার) দুপুর ১২টায় ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের চান্দিনা উপজেলার কাঠেরপুল নামক স্থানে বাস চাপায় নিহত হয় সিয়াম এর বোন তন্নী (২০), ভাগ্নি দেড় বছর বয়সী মুনতাহা, খালা রেজিয়া বেগম (৪৫) ও সিএনজি অটোরিক্সা চালক হাবিবুর রহমান (২৫)। সিয়াম এর মৃত্যুতে মৃতের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ৫জনে। এ ঘটনায় নিহত রেজিয়ার ছেলে জাহিদ (১৮) দীর্ঘদিন হাসপাতালে চিকিৎসা শেষে অনেকটা সুস্থ্য হয়ে উঠেছেন।

নিহত সিয়াম এর পিতা মঞ্জুরুল আলম বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন, অনেক চেষ্টাই করেছি। সকল চেষ্টা বৃথা করে আমাদের একা করে পৃথিবী ছেড়েই চলে গেলো সিয়াম।