সেই হাসপাতালের মালিক-চিকিৎসকের বিরুদ্ধে মামলার নির্দেশ

স্টাফ রিপোর্টার
প্রকাশ: ১ মাস আগে

লক্ষ্মীপুর প্রতিনিধি : লক্ষ্মীপুরের রায়পুরে নার্সের সঙ্গে অনৈতিক কর্মকাণ্ডের অভিযোগ ওঠা সেই হাসপাতালের মালিক-চিকিৎসকের বিরুদ্ধে মামলার নির্দেশ দিয়েছে আদালত।

২৯ মে সিনিয়র সহকারী ম্যাজিস্ট্রেট আদালতের বিচারক (আমলি অঞ্চল রায়পুর) মো. তারেক আজিজ এ আদেশ দেন। অভিযুক্ত সেই মালিকের নাম মিজান মুন্সি। তিনি নিরাময় হাসপাতাল অ্যান্ড ডায়াগনস্টিক সেন্টারের মালিক। এর সঙ্গে চিকিৎসক আসাদুজ্জামানও জড়িত রয়েছেন।

আদালত সূত্র জানায়, যৌন হয়রানির একটি ভিডিও ভাইরাল হওয়ায় স্বপ্রণোদিত হয়ে সংশ্লিষ্ট থানাকে নিয়মিত মামলা রুজু করার নির্দেশ দেন বিচারক মো. তারেক আজিজ। একই সঙ্গে পাঁচ কার্যদিবসের মধ্যে এফআইআর রুজু করে রায়পুর থানার ওসিকে সংশ্লিষ্ট আদালতকে জানানোর নির্দেশ দেওয়া হয়।

জানা গেছে, হাসপাতালের মালিক হওয়ায় বছরখানেক আগে ১৭ বছর বয়সী এক তরুণীকে নার্সের চাকরি দেন মিজান মুন্সি। এরপর থেকেই নার্সকে বিভিন্নভাবে কুপ্রস্তাব দিচ্ছিলেন তিনি। সম্প্রতি নার্সের সঙ্গে অনৈতিক কর্মকাণ্ডে জড়িয়ে পড়েন। একই সঙ্গে ভিডিও ধারণ করে রাখেন। ভিডিওটি ফেসবুকে ছড়িয়ে পড়লে মুহূর্তেই ভাইরাল হয়। এছাড়া নারী কর্মীদের সঙ্গে দীর্ঘদিন ধরে অনৈতিক কার্মকাণ্ড করছিলেন মিজান মুন্সি ও ডিউটি ডাক্তার আসাদুজ্জামান।