সংবাদ শিরোনাম
বুধবার, ২৪শে জুলাই, ২০১৯ ইং | ৯ই শ্রাবণ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
প্রথম গুজব দুবাই থেকে, সরকারবিরোধী সম্পৃক্ততা পেয়েছে পুলিশজনপ্রশাসন পদক পেলে কুমিল্লার সিভিল সার্জন‘হলিউড সিনেমা দেখে নিজের নামের সঙ্গে বন্ড যোগ করেন নয়ন’রহস্যঘেরা বিয়ে, নয়ন-মিন্নির সংসারের ২০ আলামত জব্দ ফরেনসিক পরীক্ষা হবে সিআইডিতে * হলিউডের বিখ্যাত সিনেমা ‘০০৭ লাইসেন্স’র নায়কের নামানুসারে নিজের নামের সঙ্গে ‘বন্ড’ যুক্ত করেন নয়ন, এরপর সিনেমাটির গল্পের আদলে গড়ে তোলেন সন্ত্রাসী বাহিনীরাতে এমপি শম্ভুর চেম্বারে মিন্নির আইনজীবীর বৈঠক নিয়ে তোলপাড়মিন্নির জামিন শুনানি ৩০ জুলাইমিন্নির জামিন চেয়ে ফের আবেদন‘আমরা অভ্যন্তরীণভাবে বলেছি, প্রিয়া ট্রাম্পের কাছে বলেছেন’প্রিয়া সাহার ষড়যন্ত্র সফল হবে না : বীর বাহাদুরহিন্দু-বৌদ্ধ-খ্রিষ্টান ঐক্য পরিষদ থেকে প্রিয়া সাহা বহিষ্কার‘আমার পাঞ্জাবি খুলে নুসরাতের গায়ে পরিয়ে দেই’প্রধানমন্ত্রীর চোখে সফল অস্ত্রোপচারবুড়িচংয়ে সড়কে বেরিক্যাড দিয়ে ডাকাতিধর্ষণে সাত বছরের শিশু হাসপাতালে, যুবক আটককুমিল্লায় ৩ সহ¯্রাধিক অবৈধ গ্যাস সংযোগ বিচ্ছিন্নব্যাটিং-বোলিংয়ের চেয়ে ফিল্ডিং ব্যর্থতাই বেশি ভুগিয়েছে টাইগারদেরআইসিসির চোখেও বিশ্বকাপে ব্যর্থ বাংলাদেশ!আমি নিশ্চিত নিয়ম বদলাবে : নিউজিল্যান্ড কোচবিশ্বকাপ জিতিয়ে নাইটহুড উপাধি পাচ্ছেন স্টোকস১০নং ডাইনিং স্ট্রিটে বিশ্বকাপ জয়ী ইংল্যান্ড

ইলিশের শহরে কেজি ১৫০০ টাকা

 জেলা প্রতিনিধি  চাঁদপুর

ইলিশের শহর চাঁদপুর। চলছে ইলিশের মৌসুম। অথচ এখানে ইলিশের চড়া দাম। এক কেজি এবং এর বেশি ওজনের ইলিশ ১৩শ থেকে ১৫শ টাকায় বিক্রি হচ্ছে।

স্থানীয় সূত্র জানায়, ইলিশের মৌসুম চলা সত্ত্বেও চাঁদপুরের নদ-নদীতে ইলিশের আকাল চলছে। বাজারে চাষের মাছ কম। সাগরে ধরা অন্যান্য মাছে ভরপুর চাঁদপুর মাছঘাট। গত চারদিন হাজার হাজার মণ ইলিশ আড়তে আসলেও দাম কমেনি।

জানা গেছে, মাছের সাইজ বুঝে এবং নদী না সাগরের, তাজা না বরফের এ হিসেবে মাছের দাম কম বেশি ওঠানামা করছে। ঘাটে মাছের দাম কম হবে এ আশায় মাছ কিনতে এসে দাম শুনে হতাশ ক্রেতারা। মাঝারি সাইজের ইলিশের কেজি ৭-৮শ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। শুধুমাত্র ৩-৪শ গ্রাম ওজনের ইলিশের কেজি সাড়ে ৩ থেকে সাড়ে ৪০০ টাকায় বিক্রি হচ্ছে। এক-দেড় কেজি ওজনের ইলিশের কেজি ১৩শ থেকে ১৫শ টাকায় বিক্রি হচ্ছে।

স্থানীয় মাছ বিক্রেতা খন্দকার মুকবুল হোসেন বলেন, ভরা মৌসুম হওয়া সত্ত্বেও ইলিশের দাম কমে নাই। ইলিশের আমদানি যেমন বেশি দামও বেশি। বড় ইলিশের কেজি ১৫শ টাকায় বিক্রি হচ্ছে।

 

বুধবার সরেজমিনে চাঁদপুর ঘাটে গিয়ে দেখা যায়, প্রচুর ইলিশ বাজারে। হাজি আ. মালেক খন্দকার, কালু ভূঁইয়া, শবেবরাত হাজি, ইকবাল বেপারী, কুদ্দুছ খা ও উত্তমের আড়তে হাতিয়া ও দৌলত খার প্রচুর ইলিশ কেনাবেচা হয়। নান্টু বাদির, দেলু খা, আনোয়ার গাজি, খালেক, ছানা, বাবুল হাজি ও মালেক খন্দকারসহ আরও অনেক চালানি আড়ত থেকে ইলিশ কেনে দেশের বিভিন্ন স্থানে পাঠিয়ে দিচ্ছেন।

দৌলত খার মাছের ব্যাপারী মো. ইউসুফ ও হাতিয়ার মফিজ মাঝি বলেন, ১৩-১৪ মণ ইলিশ মাছ খন্দকারের আড়তে দিয়েছি। ১৯ হাজার টাকা মণ দরে বিক্রি করেছি। এসব ইলিশ সাগরের। ভোলার নদীতে ইলিশ নাই। তাই দাম বেশি।

ইলিশ মাছের দাম কমছে না কেন জানতে চাইলে চাঁদপুর মৎস্য বণিক সমবায় সমিতির সাধারণ সম্পাদক হাজি শবেবরাত সরকার বলেন, মঙ্গলবার চাঁদপুর ঘাটে এক-দেড় হাজার মণ ইলিশ কেনাবেচা হয়েছে। মাছের দাম কিছুটা কমেছে। ১৪ হাজার থেকে ১৬ হাজার টাকা মণ দরে অর্থাৎ ৪শ থেকে সাড়ে ৪’শ টাকা কেজি ধরে ইলিশ বিক্রি হচ্ছে। আগের চেয়ে ইলিশের দাম কিছুটা কমেছে। তবে বড় সাইজের ইলিশের দাম বেশি।

মৎস্য সমিতির পরিচালক খালেক বেপারী বলেন, লোকাল নদীর মাছ না পাওয়ায় চাঁদপুর ঘাট গোয়ালন্দ হয়ে গেছে। এখানের সব মাছ সাগরের। অভিযানের আগে সাগরের কিছু মাছ চাঁদপুরে এসেছে। আমরা ব্যবসায়ীরাই ভালো নাই। দাম কমবে কীভাবে?।

সংবাদটি শেয়ার করুন............
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  



Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *