সংবাদ শিরোনাম
সোমবার, ১৩ই জুলাই, ২০২০ ইং | ২৯শে আষাঢ়, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ
বুড়িচংয়ে পুলিশের অভিযানে ১৩ কেজি গাঁজা সহ দুই মাদক ব্যবসায়ী অাটককরোনাকালিন সময়েএমপিওভুক্তি না হওয়ায় বেসরকারি কলেজের অনার্স -মাস্টার্স শিক্ষকদের মানবেতর জীবনকুমিল­া জুড়ে করোনা – নতুন আক্রান্ত ৬৩ : জেলায় বেড়ে দাঁড়াল ৪,৪৭৪ব্রাহ্মণবাড়িয়ায় মহাসড়কের পাশে খালে যাএীবাহী বাস, আহত ১০এমপিওভুক্তি না হওয়ায় বেসরকারি কলেজের অনার্স -মাস্টার্স শিক্ষকদের মানবেতর জীবন যাপনকরোনায় বন্ধ ২৭৫ স্থানীয় সংবাদপত্র: বিআইজেএনকরোনাকালীন কুবি শিক্ষার্থীদের ৪০ শতাংশ মেস ভাড়া মওকুফব্রাহ্মণবাড়িয়ায় করোনায় আক্রান্ত দেড় হাজার ছাড়ালো১৯ হাজার ইয়াবাসহ হানিফ বাসের চালক আটকবাঞ্ছারামপুরে দুই পুলিশ সদস্যসের উপর হামলা, গ্রেফতার ২অতিথি কলাম : আমার করোনা জয়ের গল্প – এ,বি,এম মোস্তাফিজুর রহমানঅতথিি কলাম -১ কুমিল্লার সাবেক এডিসি মো: আমিনুল ইসলামকে স্মরণ – মাসুদা তোফাফেনীতে জ্বর-শ্বাসকষ্ট নিয়ে ব্যবসায়ীর মৃত্যুনোয়াখালীতে বন্দুকযুদ্ধে ধর্ষণ মামলার আসামি নিহতদেবিদ্বারে সিএনজিতে ট্রাকের ধাক্কা, দুই যাত্রী নিহতশীঘ্রই চালু হচ্ছে মুন্সিরহাট কনকপুর ব্রিজের নির্মাণকরোনায় মৃত্যুর তালিকায় আরও ৩৭ জনকুমিল্লায় প্রবাসী হত্যা মামলায় পিতা ও পুত্র আটকসংঘবদ্ধ ধর্ষণের সংবাদ প্রকাশ করায়’ দুই সাংবাদিককে মারধর

খুলনায় ফল ধরেছে কোরআনে বর্ণিত সেই তীন গাছে, দর্শনার্থীদের ভিড়

২০১১ সালে মিসর থেকে খুলনার বটিয়াঘাটা উপজেলার জলমায় একটি তীন ফলের গাছ এনেছিলেন আবু মুহাম্মদ আসসাওয়াদফি আল ফিকাহ নামের এক ব্যক্তি।

ধারণা করা হয়েছিল মরুভূমির এই গাছ বাংলাদেশের মাটিতে টিকবে না। কিন্তু সবার ধারণাকে ভুল প্রমাণিত করে গত ৮ বছরে তরতর করে বড় হয়েছে গাছটি। ফলও ধরেছে এর। স্থানীয়দের দাবি, এ গাছ বাংলাদেশে এই একটিই আছে।

গত কয়েক বছর ধরেই গাছটি দেখতে দূর-দূরান্ত থেকে লোক ছুটে আসছেন।

এর কারণ এই সেই তীন গাছ যার নামে পবিত্র কোরানে একটি সূরাই নাযিল হয়েছে। এই তীনের নামে মহান আল্লাহ তায়ালা শপথও করেছেন।

তাই মুসলমানদের কাছে এই তীন গাছ ও এর ফল একটু ভিন্ন অর্থ বহন করে।

সোসাইটি অব সোস্যাল রিফর্ম স্কুলের প্রধান শিক্ষক মো. মাসুম বিল্লাহ বলেন, তীন গাছকে দেখতে অনেকেই আসছেন। বিশেষকরে যখন ফল ধরে তখন স্কুলের শিক্ষার্থী ও অভিভাবকরাসহ দশনার্থী বেড়ে যায়।

উল্লেখ্য, কোরআনের ৩০তম পারার ৯৫ নম্বর সূরার প্রথম আয়াত وَالتِّينِ وَالزَّيْتُونِ ‘ওয়াত্তীনি ওয়াযাইতূনি। বর্ণিত সূরায় আল্লাহতায়ালা তীন গাছের নামে শপথ করেছেন।

সূরার প্রথম শব্দ তীন অনুসারে এ সূরার নামকরণ করা হয়েছে- সূরা আত-তীন।

তীনের বাংলা অর্থ আঞ্জীর বা ডুমুর। মধ্যপ্রাচ্য এবং পশ্চিম এশিয়ায় এ ফলের উৎপাদন বাণিজ্যিকভাবে করা হয়।

সৌদি, কুয়েত, মিসরসহ আফগানিস্তান থেকে পর্তুগাল পর্যন্ত এই ফলের বাণিজ্যিক চাষ হয়ে থাকে।

দাওহাতুল খাইর কমপ্লেক্স এর প্রশাসনিক কর্মকর্তা সানোয়ার হুসাইন বলেন, খুলনার আবহাওয়ায় মধ্যপ্রাচ্যের এই গাছটি অন্যান্য গাছের মতোই বেড়ে উঠেছে। গাছটিতেও ফলও ধরেছে। গাছটির ফল আমি খেয়েছি। এটি অনেক সুস্বাদু।

ফলের আকার ডুমুরের চেয়ে বড়, খেতে মিষ্টি ও রসালো বলে জানান তিনি।

সংবাদটি শেয়ার করুন............
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  



Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *