শনিবার, ২৫শে জানুয়ারি, ২০২০ ইং | ১২ই মাঘ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ
কুমিল­ায় বিদেশী অস্ত্রসহ সন্ত্রাসী গ্রেফতারদেবিদ্বারের যানজট নিয়ে যা বললেন অস্ট্রেলিয়ান পর্যটক আকলেস খুদমুরাদনগরে কৃষকের ওপর সন্ত্রাসী হামলানবীনগরে গৃহবধূকে নির্যাতনের অভিযোগ!সীমান্তে দুই বাংলাদেশিকে গুলি করে হত্যা করল বিএসএফপৃথিবীর সবচেয়ে রঙিন নদী কানোক্রিসটেলসফেসবুক স্ট্যাটাস দিয়ে নিজের বুকে গুলি চালালো পুলিশকুমিল্লায় দোকানী হত্যা- প্রতিবন্ধী কিশোরীকে ধর্ষণের প্রতিবাদ করায় খুন হয় নাছিরইজিবাইক উল্টে কুবির সাত শিক্ষার্থী আহতব্রাহ্মণপাড়ায় মাঠ জুড়ে গোল আলু গাছের সবুজ সমারোহকুমিল্লায় ৭ জুয়াড়ীকে সাজাফেনীতে নজর কাড়ছে দৃষ্টিনন্দন ভাস্কর্যআখের লালি তৈরিতে মাতোয়ারা বিষ্ণপুরভয়াবহ দুর্ঘটনায় গাড়ি চুরমার, প্রাণে বাঁচলেন আর্জেন্টিনা গোলরক্ষকভৈরবে ছয় মণের বিশাল মাছ দেখতে মানুষের ভিড়নিজে না খাইয়ে মাছকে খাওয়াচ্ছে হাঁস (ভিডিও)কুবিতে সাংবাদিক মারধরের ঘটনায় দুইজনসহ তিন শিক্ষার্থী বহিষ্কারমার্কেন্টাইল ব্যাংক লিমিটেড প্রথম বিভাগ ক্রিকেট লিগ এমসিসিকে হারিয়ে সেমিফাইনালে এফসিআইচাঁদপুরে বেগুনি রঙের ধান নিয়ে সারাদেশে তোলপাড়তেঁতুলিয়ায় দেশের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ৭.৭

প্রতিনিয়ত ডাকাতি হচেছ ডাকাতিয়ার বালু # সরকার হারাচ্ছে লক্ষ লক্ষ টাকার রাজস্ব

স্টাফ রিপোর্টার।। কুমিল্লার চৌদ্দগ্রাম উপজেলার বিভিন্ন স্থানে ২৮টি ড্রেজার মেশিন দিয়ে অবৈধভাবে বালু তুলছে প্রভাবশালীরা। স্থানীয় প্রশাসন একাধিক প্রভাবশালীর বিরুদ্ধে মামলা ও ভ্রাম্যমাণ আদালত পরিচালনা করলেও থেমে নেই অবৈধভাবে বালি ও মাটি উত্তোলন। অবাধে বালু ও মাটি উত্তোলনের ফলে আশ-পাশের ফসলি জমি, ব্রিজ, কালভার্টে ফাটল সৃষ্টি হয়েছে।আর অপর দিকে সরকার হারাচ্ছে লক্ষ লক্ষ টাকার রাজস্ব।
এদিকে, অবৈধভাবে বালু ও মাটি উত্তোলনের মাধ্যমে ওই প্রভাবশালীরা হাতিয়ে নিচ্ছে কয়েক কোটি টাকা। অথচ এই আয় থেকে সরকার কোন রাজস্ব পাচ্ছে না। ডাকাতিয়া নদীতে ড্রেজার বসিয়ে বালু ও মাটি তোলার স্থানগুলো হলো; উপজেলার কাশিনগর ইউনিয়নের ধর্মপুর ঈদগাঁহ, হিলালনগর ব্রিজ সংলগ্ন, শাহাপুর, শ্রীপুর ইউনিয়নের রাজার বাজার, ত্রিশকোট, শুভপুর ইউনিয়নের আকছর, পোটকরা কড়ীয়া বাজার, চিওড়া ইউনিয়নের সাঙ্গিশ্বর, শাকতলা, পন্নারা, চিলপাড়া, কনকাপৈত ইউনিয়নের জাগজুর, জঙ্গলপুর, গুণবতী ইউনিয়নের পরিকোট ও আকদিয়া।
স্থানীয় সূত্র জানায়, জেলার চৌদ্দগ্রাম ও নাঙ্গলকোট উপজেলার সীমান্তবর্তী এলাকায় অবস্থিত ডাকাতিয়া নদী। এই নদীর দুই পাশে উভয় উপজেলার কয়েক হাজার হেক্টর ফসলি জমি রয়েছে। নদীর উপর দিয়ে দুই উপজেলার বাসিন্দাদের পারাপারের জন্য স্থাপন করা হয়েছে একাধিক ব্রিজ। তবে প্রশাসনকে তোয়াক্কা না করে একাধিক প্রভাবশালী মহল উপজেলার পাঁচটি ইউনিয়নের বিভিন্নস্থানে ২৮টি ড্রেজার মেশিন বসিয়ে অবৈধভাবে বালি ও মাটি উত্তোলন করে বিক্রি করে অবৈধভাবে কয়েক কোটি টাকা আয় করছে। এর মধ্যে উপজেলার শুভপুর ইউনিয়নের পোটকরা (কড়ীয়া বাজার) সংলগ্ন ডাকাতিয়া নদীর পাড় থেকে শ্রীপুর ইউনিয়নের ত্রিশকোট মজুমদার বাড়ি পর্যন্ত প্রায় ২ কিলোমিটার এলাকা থেকে গত তিন মাসে ৬-৭ কোটি টাকার মাটি অবৈধভাবে বিক্রি করেছে একটি চক্র। বর্তমানে এই অংশে মাটি বিক্রি শেষ পর্যায়ে।
নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক স্থানীয়রা জানায়, রাজনৈতিক নেতা পরিচয়ে একটি বিশাল সিন্ডিকেট এই অবৈধ কর্মকাণ্ডের সাথে জড়িত। ফলে কেউ এর প্রতিবাদ করতে সাহস পায়না। এসব প্রভাবশালীরা বিভিন্নভাবে হুমকি প্রদান করে এলাকাবাসীদের। এছাড়া রাজনৈতিক নেতা ও প্রশাসনের সাথেও সখ্যতা রয়েছে তাদের।
এই প্রসঙ্গে জানতে চাইলে চৌদ্দগ্রাম উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভুমি) সাইফুর রহমান বলেন, ইতিমধ্যে নদী থেকে অবৈধভাবে বালি ও মাটি উত্তোলকারীদের বিরুদ্ধে অভিযান শুরু হয়েছে। আর আমাদের এই অভিযান অব্যাহত থাকবে।
তিনি আরো জানান, এছাড়া এসব ঘটনায় জড়িতদের কয়েকজনের বিরুদ্ধে মামলাও করা হচ্ছে। বাকীদের বিরুদ্ধেও ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

সংবাদটি শেয়ার করুন............
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  



Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *