কুমিল্লায় বিএনপির প্রতিষ্ঠা বার্ষিকীর অনুষ্ঠানে হাজি ইয়াছিন

জিয়াউর রহমানের হাত ধরেই আওয়ামীলীগের পুনর্জন্ম হয়েছিলো
জাহিদ হাসান নাইম।।
প্রকাশ: ৬ মাস আগে

বিএনপির কেন্দ্রীয় কমিটির ত্রাণ ও পুনর্বাসন সম্পাদক, কুমিল্লা দক্ষিণ জেলা বিএনপির আহবায়ক ও সাবেক এমপি হাজী আমিন-উর- রশিদ ইয়াছিন বলেছেন, জিয়াউর রহমানের সময়কালে আওয়ামীলীগ নামে কোনো দলও ছিলো না, তখন ছিলো বাকশাল। জিয়াউর রহমান শেখ হাসিনাকে ডেকে এনে বলেছিলেন, আমরা শক্তিশালী বিরোধী দল চাই, আপনি আপনার দল আওয়ামীলীগকে ঘুছান। বলতে গেলে, আওয়ামীলীগের পুনর্জন্ম হয়েছিলো শহীদ প্রেসিডেন্ট জিয়াউর রহমানের হাত ধরে। জিয়াউর রহমান জাতির দায়িত্ব নিয়ে স্বাধীনতার ঘোষণা করেই থেমে যান নি, তিনি যুদ্ধ করেছেন, স্বাধীনতা লাভ করে ক্ষমতার লোভ না করে আবারো ব্যারাকে ফিরে গেছেন। পরে দেশে বাকশাল সৃষ্টি হলো, দেশে অরাজকতা শুরু হলো। এই দেশের দায়িত্ব কে নিবে তা নিয়ে দুশ্চিন্তার ছাপ যখন শুরু হলো, ঠিক জনতার অনুরোধে জিয়াউর রহমান ক্ষমতায় আসলেন। জিয়াউর রহমান বিশ্বাস করতেন, গণতন্ত্র প্রতিষ্ঠা না হলে দেশের উন্নয়ন হবে না। তাই শহীদ জিয়া এক দলীয় শাসন থেকে দেশকে বহুদলীয় গণতন্ত্রে ফিরিয়ে নিয়ে এসেছিলেন। তাই তো শহীদ জিয়াকে বলা হয় বহু দলীয় গণতন্ত্রের প্রবর্তক।
গতকাল শুক্রবার (১ সেপ্টেম্বর) বিএনপি’র ৪৫তম প্রতিষ্ঠা বার্ষিকী উপলক্ষে কুমিল্লা দক্ষিণ জেলা ও মহানগর বিএনপির উদ্যোগে নগরীর ধর্মসাগরপাড়স্থ বিএনপি’র অস্থায়ী কার্যালয়ে আয়োজিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন।
বিএনপির কেন্দ্রীয় নেতা হাজী ইয়াছিন আরো বলেন, বিএনপি হত্যার রাজনীতি করে না, হত্যার রাজনীতি করে আওয়ামীলীগ। গুম, হত্যা এগুলো আওয়ামীলীগের আমলেই হয়। আমরা অন্যায় আর ভোট দখলের রাজনীতি করি না। বিএনপি সুশাসনে বিশ্বাসী। আওয়ামীলীগ অন্যায় করতে করতে এখন ন্যায়ের কথা বলতে ভুলে গেছে। আওয়ামীলীগ যত চেষ্টাই করুক,আর ক্ষমতায় থাকতে পারবে না। বিদেশীরাও এখন বলে আওয়ামীলীগ চোর। আগে আওয়ামীলীগের অন্যায় অবিচারের কথা আমরা বলতাম শুধু, কিন্তু এখন আন্তর্জাতিকভাবেও তাদের উপর নজর রাখছে। প্রশাসনকে বলবো আপনারা জনগণের হয়ে উঠুন। আমরা এই জুলুমবাজ সরকারকে হটিয়ে নিরপেক্ষ সরকার গঠন না হওয়া পর্যন্ত আমরা আন্দোলন চালিয়ে যাবো।

কুমিল্লা মহানগর বিএনপির আহবায়ক উদবাতুল বারী আবু’র সভাপতিত্বে ও সদস্য সচিব ইউসুফ মোল্লা টিপুর সঞ্চালনায় আলোচনা সভায় অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন, কুমিল্লা দক্ষিণ জেলা বিএনপির সদস্য সচিব হাজি জসিম উদ্দিন,সিনিয়র যুগ্ম আহবায়ক এড. আলী আক্কাছ,মহানগর বিএনপির সিনিয়র যুগ্ন আহ্বায়ক জসিম উদ্দিন ভিপি, বিএনপির সিনিয়র নেতা আবদুর রউফ চৌধুরী ফারুক, দক্ষিণ জেলা কৃষক দলের আহ্বায়ক মোস্তফা জামান, কুমিল্লা দক্ষিণ জেলা বিএনপির যুগ্ম আহবায়ক ভিপি আশিকুর রহমান মাহমুদ ওয়াসিম,আদর্শ সদর উপজেলা বিএনপির সদস্য সচিব হাজী শফিউল আলম রায়হান প্রমুখ।
এ সময় কুমিল্লা দক্ষিণ জেলা ও মহানগর বিএনপির বিভিন্ন স্তরের নেতাকর্মীরা উপস্থিত ছিলেন।