কুমিল্লা সিটি কর্পোরেশন উপনির্বাচনে প্রতীক পেলেন চার প্রার্থী

জাহিদ হাসান নাইম
প্রকাশ: ৪ মাস আগে

 

কুমিল্লা সিটি করপোরেশন (কুসিক) উপনির্বাচনে চার মেয়রপ্রার্থীকে প্রতীক বরাদ্দ দেওয়া হয়েছে। কুমিল্লার আঞ্চলিক নির্বাচন কমিশন কার্যালয়ে শুক্রবার (২৩ ফেব্রুয়ারি) সকাল ৯টা থেকে প্রতীক বরাদ্দ দেওয়া শুরু করেন নির্বাচনের রিটার্নিং কর্মকর্তা ও আঞ্চলিক নির্বাচন কর্মকর্তা ফরহাদ হোসেন।

এর মধ্যে দুই বারের সাবেক মেয়র ও বিএনপি নেতা মনিরুল হক সাক্কু পেয়েছেন টেবিল ঘড়ি প্রতীক। তার পক্ষে প্রতীক বরাদ্দ নেন অ্যাডভোকেট মো. মোস্তফা। মহানগর স্বেচ্ছাসেবক দলের সাবেক সভাপতি নিজাম উদ্দিন কায়সারকে ঘোড়া প্রতীক বরাদ্দ দেওয়া হয়। তিনি নিজেই প্রতীক গ্রহণ করেন। স্বতন্ত্র প্রার্থী মহানগর আওয়ামীলীগের সাধারণ সম্পাদক ডা. তাহসিন বাহার সূচনা পেয়েছেন বাস প্রতীক। তার পক্ষে প্রতীক গ্রহণ করেন মহানগর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আতিকুল্লাহ খোকন। আরেক প্রার্থী কুমিল্লা মহানগর আওয়ামীলীগের উপদেষ্টামন্ডলির সদস্য নূর-উর রহমান মাহমুদ তানিম পেয়েছেন হাতি প্রতীক। তিনি নিজেই প্রতীক গ্রহণ করেন।

প্রতীক বরাদ্দের সময় আঞ্চলিক নির্বাচন কর্মকর্তা ফরহাদ হোসেন বলেন, ‘সবাই নির্বাচনি আচরণবিধি মেনে প্রচারণা করবেন। আচরণবিধি ভঙ্গ করলে ব্যবস্থা নেওয়া হবে। আমরা একটি শান্তিপূর্ণ নির্বাচন চাই।’

এসময় প্রতীক পেয়ে প্রার্থীদের মধ্যে নিজ নিজ প্রতীকে স্লোগান দিতে দেখা যায়।

প্রতীক পেয়ে সাবেক মেয়র মনিরুল হক সাক্কুর পক্ষে বক্তব্য রাখেন এড. মোহাম্মদ মোস্তফা বলেন, আমরা আমাদের পছন্দের প্রতীকই পেয়েছি। আমাদের প্রার্থী জনগণের জন্য কাজ করছেন। তাই আমরা তার পক্ষ হয়ে প্রতীক নিতে এসেছি।

নিজাম উদ্দিন কায়সার বলেন, কোনো অপশক্তি বা চক্রান্ত এবার আর কাজে আসবে না। জনগণের অধিকার হরণ করার আর সুযোগ নেই। নির্বাচনী প্রচারণা এবার পুরোদমে শুরু করবো।

প্রার্থী নূর উর রহমান মাহমুদ তানিম বলেন, কেউ যদি আইন অমান্য করে এবার কিছু করার চেষ্টা করে তাহলে নির্বাচন গ্রহণযোগ্যতা হারাবে। এই বিষয়ে সংস্লিষ্ট সকলকে সতর্ক থাকতে হবে।

এদিকে, প্রতীক পাওয়ার পর ডা. তাহসিন বাহার সূচনা বলেন, আমরা গণমানুষের পরিবহন বাস প্রতীক পেয়েছি। কুমিল্লা আমার শহর। কুমিল্লার উন্নয়নের অগ্রযাত্রাকে অব্যহত রাখতে ও আমার বাবার স্বপ্নের কুমিল্লা গড়তে আমি কাজ করে যাবো।

নির্বাচনে মোট ১০৫টি ভোটকেন্দ্রের ৬৪০টি কক্ষে ভোট নেওয়া হবে। নির্বাচন আগামী ৯ মার্চ ইভিএমের মাধ্যমে অনুষ্ঠিত হবে। এবার এই সিটি কর্পোরেশনে দুই লাখ ৪২ হাজার ৪৬০ জন ভোটার রয়েছেন। এর মাঝে পুরুষ ভোটার রয়েছেন ১ লাখ ১৮ হাজার ১৭৯ জন ও নারী ভোটার রয়েছেন ১ লাখ ২৪ হাজার ২৭৯ জন ও তৃতীয় লিঙ্গের ভোটার রয়েছেন ২ জন।

উল্লেখ্য, ২০২২ সালের কুসিকের তৃতীয় নির্বাচনে মেয়র নির্বাচিত হন নৌকা প্রতীকের আরফানুল হক রিফাত। ২০২৩ সালের ১৩ ডিসেম্বর সিঙ্গাপুরের একটি হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান তিনি।