খুলনায় বিএনপির ৪৮ নেতাকর্মীর নামে মামলা, অজ্ঞাত আসামি ১৩০০

স্টাফ রিপোর্টার
প্রকাশ: ১০ মাস আগে

খুলনায় পুলিশের সঙ্গে সংঘর্ষের ঘটনায় বিএনপির ৪৮ নেতাকর্মীর নামে মামলা হয়েছে। এ মামলায় আরও ১৩০০ জনকে অজ্ঞাত আসামি করা হয়েছে। এখন পর্যন্ত ১৩ নেতাকর্মীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

খুলনা সদর থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) হাসান আল মামুন মামলার বিষয়টি জাগো নিউজকে নিশ্চিত করেছেন।

গ্রেফতাররা হলেন- সোহেল রানা (২০), গাজী সালাউদ্দীন (৪২), আতাউর রহমান (৪৮), সেকেন্দার শেখ (৬০), শাইখুল মোল্যা (৩৪), ওয়াহিদ শেখ (৩২), রাসেল (২৪), রাব্বি চৌধুরী (২৯), মাহবুব গাজী (২৬), মনিরুজ্জামান মামুন (৪২), রাজু শেখ (৪১), আলিফ মিলন (৩১) ও রাসেল (২৭)।

পুলিশ ও বিএনপি সূত্রে জানা যায়, সরকারের পদত্যাগ, মামলা ও গণগ্রেফথার বন্ধসহ ১০ দফা দাবি আদায়ে শুক্রবার বিকেলে খুলনা প্রেস ক্লাব চত্বরে বিক্ষোভ সমাবেশ আহ্বান করে বিএনপি। বিকেলে প্রেস ক্লাবের সামনে বিএনপি নেতাকর্মীরা জড়ো হন। আগে থেকেই সেখানে বিপুল সংখ্যক পুলিশ মোতায়েন ছিল।

সমাবেশের প্রধান অতিথি বিএনপির জাতীয় স্থায়ী কমিটির সদস্য আমীর খসরু মাহমুদ চৌধুরী, বিভাগীয় ভারপ্রাপ্ত সাংগঠনিক সম্পাদক অনিন্দ্য ইসলাম অমিত ও তথ্য বিষয়ক সম্পাদক আজিজুল বারী হেলাল প্রাইভেটকারে ক্লাবের সামনে আসেন। এ সময় বিএনপি নেতাকর্মীরা স্লোগান দিতে থাকেন।

সোয়া ৪টার দিকে হঠাৎ পুলিশের ওপর বিএনপির নেতাকর্মীরা ইটপাটকেল নিক্ষেপ করতে শুরু করে। এতেই পুলিশের সঙ্গে নেতাকর্মীদের সংঘর্ষ হয়। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে রাখতে পুলিশ লাঠিচার্জ ও টিয়ারশেল, রাবার বুলেট নিক্ষেপ করে।

ওসি হাসান আল মামুন বলেন, সদর থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) খালিদ উদ্দিন বাদী হয়ে শুক্রবার রাতেই এ মামলাটি করেন। মামলায় বিএনপির কেন্দ্রীয় তথ্য বিষয়ক সম্পাদক আজিজুল বারী হেলাল, মহানগর সদস্য সচিব শফিকুল আলম তুহিনসহ ৪৮ জনের নাম উল্লেখ করে এবং অজ্ঞাতনামা ১৩০০ জনকে আসামি করা হয়েছে।