মুরাদনগর আওয়ামী সম্মেলনে প্রিয় মুখ ড. কিশোর আলম

১৫ ডিসেম্বর মুরাদনগর উপজেলা আওয়ামী সম্মেলন
স্টাফ রিপোর্টার
প্রকাশ: ২ মাস আগে

মুরাদনগরে ক্ষমতাসীন আওয়ামীলীগের ত্রি-বার্ষিক সম্মেল আগামী ১৫ ডিসেম্বর । সম্মেলন থেকে ঘোষণা আসতে পারে নতুন নেতৃত্বের। এবার মূল আলোচনা সাধারণ সম্পাদক পদ নিয়ে। এ পদে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করতে মাঠে আছেন তিন নেতা। এদের মধ্যে জনপ্রিয়তার শীর্ষে রয়েছেন ড. আহসানুল আলম সরকার কিশোর।
তিনি সাধারণ সম্পাদক প্রাথীদের মধ্যে উচ্চ শিক্ষিত তরুণ উদ্দীপ্ত ও গতিশীল সমাজ সেবক। সবচেয়ে কম বয়সে হয়েছেন মুরাদনগর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান। ড.কিশোর কুমিল্লা উত্তর জেলা আওয়মীলীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক ও বর্ষিয়ান রাজনৈতিক আজহাজ্ব জাহাঙ্গীর আলম সরকারের পুত্র।
ড.কিশোর আলম – লন্ডনের গ্লাসগো ইউনিভার্সিটি থেকে পোস্ট গ্রাজুয়েট ডিগ্রি শেষ করেন ২০০৮ সালে। তারপর লন্ডনের কমনওয়েলথ ইউনিভার্সিটি থেকে মাস্টার্স ও লোকশাসন বিভাগে পিএইচডি শেষ করেন। পড়াশোনারত অবস্থায়ই মনে মনে লালন করেন বঙ্গবন্ধুর রাজনৈতিক আদর্শ। তাই দেশে এসে ওই পথেই হাঁটেন তিনি।
আওয়ামী পরিবারের ওই সন্তান ২০১১ সালে রাজনীতিতে ঘটান আত্মপ্রকাশ। ২০১২ সালে কুমিল্লা উত্তর জেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগের যুগ্ন আহবায়ক ও ২০১৬-২০২১ পর্যন্ত সদস্য সচিবের দায়ত্ব পালন করেন। এছাড়াও তিনি বাংলাদেশ আওয়ামীলীগ বণ ও পরিবেশ বিষয়ক উপ-কমিটির সদস্য। বর্তমানে মুরাদনগর উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক প্রার্থী হিসেবে রয়েছেন আলোচনার শীর্ষে।
২০১৯ সালে আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থী ড.কিশোর আলম নৌকা প্রতিক নিয়ে উপজেলা চেয়ারম্যান পদে বিপুল ভোটে জয় লাভ করেন। উপজেলা চেয়ারম্যান হওয়ার পর নানাবিধ কর্মকান্ডে মাধ্যমে তৃনমূল নেতাকর্মীর হৃদয়ে স্থান করে নেন।
তিনি একজন করোনাকালীন সম্মুখ যোদ্ধা । মহামারি করোনায় আক্রান্ত হয়ে কেউ মৃত্যুবরন করলে তাদের দাফন-কাফনে সরাসরি অংশগ্রহণ করেছেন। কাঁদে তুলে নিয়েছেন নিহতের লাশ। গরীব- দুঃখী, অসহায় নিপিড়িত মানুষের কথা শুনলে ছুটে গেছেন তাঁদের বাড়িতে। করেছেন অনেক বৃদ্ধের সেবা। এভাবেই উপজেলাবাসীর কাছে একজন তরুণ প্রজন্মের রাজনৈতিক আদর্শ হিসাবে ব্যাপক পরিচিতি লাভ করেছেন ড.আহসানুল আলম সরকার কিশোর।
ড. আহসানুল আলম সরকার কিশোর বলেন, “ সম্মেলনকে ঘিরে উপজেলা আওয়ামী পরিবারের ঘরে ঘরে আনন্দ বিরাজ করছে। আশা করি কেন্দ্রিয় নেতৃবৃন্দ নবীন, প্রবীন প্রার্থীর সমন্বয়ে একটি সুন্দর কমিটি উপহার দিবেন”। সাধারণ সম্পাদকের ব্যাপারে আমি আশাবাদী ”।